শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

নেহরুর পর নরেন্দ্র মোদি

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৪, ১০:১০

টানা তৃতীয় দফায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আজ শপথ নেবেন নরেন্দ্র মোদি। আজ সন্ধ্যায় ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সাথে রাষ্ট্রপতি ভবনে শপথ নেবেন তিনি। এ উপলক্ষে দিল্লিজুড়ে বিরাজ করছে সাজ সাজ রব, নেওয়া হয়েছে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা। সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

এবারের লোকসভা নির্বাচনে নরেন্দ্র মোদির দল বিজেপি একক সংখ্যাগরিষ্টতা না পেলেও এনডিএ জোটগত ভাবে সংখ্যাগরিষ্টতা পায় এবং আজ শপথের মধ্য দিয়ে টানা নরেন্দ্র মোদি টানা তৃতীয় মেয়াদে প্রধানমন্ত্রীর হওয়ার মাইলফলক স্পর্শ করবেন। আর এর মধ্য দিয়ে স্বাধীন ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুর পর নরেন্দ্র মোদি তৃতীয়বার ক্ষমতায় বসতে যাচ্ছেন। 

শনিবার ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ৯ জুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদি এবং ২০২৪ সালের সাধারণ নির্বাচনের পর মন্ত্রিপরিষদের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। এই অনুষ্ঠানে ভারতের প্রতিবেশী এবং ভারত মহাসাগর অঞ্চলের দেশগুলোর নেতাদের বিশিষ্ট অতিথি হিসেবে আন্তরিকভাবে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। 

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, অনুষ্ঠানে শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমাসিংহে, মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ডা. মোহাম্মদ মুইজ্জু, সেইশেলসের ভাইস প্রেসিডেন্ট আহমেদ আফিফ, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রবিন্দ কুমার জগন্নাথ, নেপালের প্রধানমন্ত্রী পুষ্প কমল দাহল প্রচন্দ ও ভুটানের প্রধানমন্ত্রী শেরিং তোবগে উপস্থিত থাকার আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছেন। ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদির শপথ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে শনিবার নয়াদিল্লি পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ভারতের রাষ্ট্রপতির সরকারি বাসভবনে প্রধানমন্ত্রী মোদির তৃতীয় মেয়াদের শপথ অনুষ্ঠানে ৮ হাজারেরও বেশি অতিথির জন্য আয়োজনের ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার দেশটির ৫৪৩টি আসনের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। এনডিএ পেয়েছে ২৯২টি আসন। বিরোধী জোট 'ইনডিয়া' পেয়েছে ২৩৩টি আসন। অন্যান্য দলের প্রাপ্ত আসনসংখ্যা ১৮টি। 

এনডিএ সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলেও ২০১৪ এবং ২০১৯-এর মতো এ বার বিজেপি একক ভাবে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায়নি। সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য প্রয়োজন ২৭২টি আসন। বিজেপি একক ভাবে জিতেছে ২৪০টি আসন। 

বিজেপির এ এনডিএ জোটের সবচেয়ে বড় শরিক হলেন নীতিশ কুমার এবং চন্দ্রবাবু নাইডু। তাদের দল যথাক্রমে ১৬ এবং ১২টি আসন পেয়েছে। সরকার গঠনে এই দুইজনের দল মোদিকে বড় সমর্থন দিচ্ছেন।

ইত্তেফাক/এএইচপি