বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা: সাবেক ইউপি চেয়ারম্যানসহ দুই জনের রিমান্ড

আপডেট : ১০ জুন ২০২৪, ১৯:৫৩

নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা ও চাঁদাবাজি মামলায় নড়াইল সদরের সিঙ্গাশোলপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান উজ্জ্বল শেখ (৩৭) ও তার সহযোগী আব্দুর রাজ্জাকের (৩৯) দুই দিনের রিম্যান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। 

সোমবার (১০ জুন) দুপুরে নড়াইল সদর আমলী আদালতের বিচারক জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. জুয়েল রানা উভয় পক্ষের শুনানি শেষে এই রায় প্রদান করেন।  

মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা নড়াইল সদর থানার সাব-ইন্সপেক্টর মেহেদী হাসান আদালতে আসামিদের বিরুদ্ধে তিন দিনের রিমান্ডের আবেদন করলে, শুনানি শেষে আদালত দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে। 

ভুক্তভোগীরা জানান, গত ২১ মে অনুষ্ঠিত নড়াইল সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতার জের ধরে গত ২ জুন রাত ১২টার দিকে প্রতিপক্ষ সিঙ্গাশোলপুর ইউনিয়নের গোবরা গ্রামের নিউটন গাজীর (৩৮) প্রাইভেটকার পুড়িয়ে দেয় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান উজ্জ্বল শেখের দলবল। এ সময় নিউটন গাজীর বৃদ্ধ বাবা আবুল হোসেন গাজী (৭০), স্ত্রী নাসরিন আক্তার (৩৫), শিশুপুত্র সাব্বির গাজী (১০) ও ছয়মাস বয়সী আরাবসহ প্রতিবেশী মোহাম্মদ লিটনকে (৪২) মারপিট করে আহত করা হয়। এ ছাড়াও নিউটনের ঘরের আসবাবপত্র ভাঙচুরসহ প্রায় এক ভরি স্বর্ণালংকার ও নগদ এক লক্ষ টাকা লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় উজ্জ্বল শেখকে প্রধান আসামি করে গত ৩ জুন সদর থানায় আরো ১৫ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন নিউটন গাজী। মামলার পরেরদিন উজ্জ্বল শেখ ও আব্দুর রাজ্জাককে গ্রেপ্তার করে সদর থানা পুলিশ।  সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আনারস প্রতীকের বিজয়ী প্রার্থী আজিজুর রহমান ভূঁইয়ার পক্ষে কাজ করায় নিউটন গাজীর প্রাইভেটকারে অগ্নিসংযোগসহ বাড়িঘরে লুটপাটের ঘটনা ঘটানো হয়েছে। সাবেক চেয়ারম্যান উজ্জ্বল শেখ নড়াইল সদর উপজেলা নির্বাচনে পরাজিত প্রার্থী তোফায়েল মাহমুদ তুফানের ঘোড়া প্রতীকের পক্ষে কাজ করেন।

ইত্তেফাক/পিও