ঢাকা সোমবার, ০১ জুন ২০২০, ১৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
২৮ °সে

ইত্তেফাককে সঙ্গে নিয়ে পাঠাওয়ের ‘পাশে আছি’ ক্যাম্পেইন

ইত্তেফাককে সঙ্গে নিয়ে পাঠাওয়ের ‘পাশে আছি’ ক্যাম্পেইন
পাশে আছি।ছবি: ইত্তেফাক

কোভিড-১৯ এর এই দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে নিরুপায় লক্ষ লক্ষ মানুষ। মহামারির কারণে লকডাউনে বাংলাদেশসহ সারা বিশ্ব। অন্যান্য সকল কর্মজীবী মানুষের মতোই লকডাউনের কারণে আয় বন্ধ হয়েছে রাইড শেয়ারিং এই প্রতিষ্ঠানের ওপর নির্ভরশীল মানুষেরাও। তাই এতদিন যারা পাঠাওকে এগিয়ে নিয়ে যেতে সাহায্য করে এসেছে, তারা নিজেরাই পরিস্থিতির কারণে আটকে আছেন অসহায় হয়ে। এই পরিস্থিতিতে পাঠাও রাইডার এবং তাদের পরিবারকে এই সংকটজনক পরিস্থিতিতে সহায়তা করার জন্য পাঠাও আয়োজন করেছে ‘পাশে আছি’ নামক একটি ক্যাম্পেইন এর। এই ক্যাম্পেইনের পার্টনার হিসেবে রয়েছে দৈনিক ইত্তেফাক।

ক্যাম্পেইনের লক্ষ্য হচ্ছে সেই সকল অসহায় রাইডারদের কাছে সহায়তা পৌঁছানো করোনার কারণে যাদের জীবন থমকে আছে। তাদেরকে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হবে বলে জানায় প্রতিষ্ঠানটি। ৬ মে শুরু হওয়া পাঠাও এর ‘পাশে আছি-পাঠাও এর গন্তব্যের সাথীদের সহযোগিতা পৌঁছে দিতে’ ক্যাম্পেইনের সাথে পার্টনার হিসেবে আরো আছে বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড, রেডিও ঢোল, বিকাশ, অভিযাত্রিক ফাউন্ডেশন, উৎসর্গ ফাউন্ডেশন এবং চলো সবাই ফাউন্ডেশন।

আরো পড়ুন: করোনা আক্রান্ত সদস্যের পাশে পুলিশের ডিপ্লোমেটিক জোন

এই প্রসঙ্গে পাঠাও লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী হোসেইন এম ইলিয়াস বলেন, ‘বাংলাদেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার পথে অনন্য অবদান রাখছে আমাদের রাইডার ও হিরোরা। দেশের এই দুঃসময়ে তাই তাদের পাশের থাকাটা আমাদের সবার কর্তব্য।’

আপনার পাঠাও এর গন্তব্যের সাথীদের সহযোগিতা করতে এখন-ই ডোনেট করুন: https://bit.ly/DonateForYourPathaoRider

পাঠাও বাংলাদেশের বৃহত্তম রাইড শেয়ারিং, ই-কমার্স ও ফুড ডেলিভারি সেবা প্রদানকারী ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম। দেশব্যাপী হাজার হাজার মানুষের জন্য নতুন কর্মসংস্থান তৈরির পাশাপাশি সামগ্রিকভাবে জীবন যাত্রার মান বৃদ্ধিতে পাঠাও কার্যকরী ভূমিকা রেখে চলেছে। দেশের বৃহৎ অবকাঠামো সমস্যার প্রেক্ষিতে পাঠাও একটি বাস্তব সমাধানের দিকে এগোছে। নিজেদেরকে দেশের সর্ববৃহৎ ই-কমার্স ডেলিভারি কোম্পানি হিসেবে প্রতিষ্ঠার পর পাঠাও যাতায়াত সেবায় নতুন দিগন্ত উন্মোচিত করেছে। পাঠাও মোটরবাইক, গাড়ির নানামুখী ব্যবহারের পর এবার ফুড, টং, ফার্মা সার্ভিসের মধ্য দিয়ে প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে বাংলাদেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। পাঠাও বাংলাদেশ সরকারের রাইড শেয়ারিং নীতিমালা ২০১৮ অনুমোদিত প্রথম রাইড-শেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম। বর্তমানে পাঠাও দৈনন্দিন জীবনের চাহিদা মেটাতে ডিজিটাল লাইফ স্টাইল প্ল্যাটফর্ম হিসেবে কাজ করছে।

ইত্তেফাক/এএএম

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
০১ জুন, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন