প্রতিবন্ধী ব্যক্তির কারাতে জয়

প্রতিবন্ধী ব্যক্তির কারাতে জয়
ছবি:রয়টার্স

গাজায় বসবাসরত ইউসুফ আবু আমিরা, গত বছরে প্যালেস্টাইনে আইন বিভাগের একজন স্নাতক ধারী। প্রতিবন্ধী হবার পরেও কোনোদিনও পিছিয়ে রাখতেন না নিজেকে। তার এ মনোবলের কারণে, শারীরিক অক্ষমতা থাকা সত্যেও জয় করতে পেরেছেন কারাতে, পেয়েছেন কমলা বেল্ট।

২৪ বছর বয়সী আমিরা জন্মেছেন দুই পা ছাড়াই, সেই সাথে নেই সম্পূর্ণ হাত, কেবল রয়েছে অসম্পূর্ণ দুই বাহু। কিন্তু তিনি নিজেকে দিয়েছিলেন নতুন এক চ্যালেঞ্জ, কারাতে জেতার চ্যালেঞ্জ। এবং তার তীব্র ইচ্ছে শক্তি ও দক্ষতার মাধ্যমে সেই চ্যালেঞ্জ জিতেও গেছেন তিনি। তার কারাতে প্রশিক্ষণ নিয়েছিলেন গাজার মার্শাল আর্টসের 'আল-মাসতাল ক্লাব' থেকে।

রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে আবু আমিরা বলেন, “আমি নিজেকে পৃথিবীর সামনে প্রমাণ করতে চেয়েছিলাম, চেয়েছিলাম বোঝাতে শরীরের শক্তির থেকে মনের শক্তি অনেক বড় এবং মনের শক্তি দিয়ে কোনো কিছুই অসম্ভব নয়”।

তিনি আরও বলেন, “আমি কারাতে করেছি যাতে করে আমি নিজেকে রক্ষা করতে পারি, এবং আমি স্বপ্নেও ভাবতাম জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে নিজেকে দেখার”।

হাত-পা না থাকার পরেও তিনি শক্তভাবে ঘুষি মারার কৌশল জব্দ করতে পেরেছিলেন। তার কোচ হাসান আল-রাই জানান, আবু আমিরার চোখে তিনি জেতার দৃঢ় সঙ্কল্প দেখতেন।

আবু আমিরা বলেন, “আমি খুবই অবাক হয়েছিলাম এমন ব্যতিক্রম দক্ষতা দেখে এবং তিনি অনেক কম অক্ষমতা সম্পন্ন ব্যক্তিদের তুলনায় যেকোনো কাজ অনেক ভালোভাবে করার ক্ষমতা রাখতেন”।

ইত্তেফাক/এনএসএন/এমএএম

Nogod
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত