মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

ছাত্রলীগের সাবেক নেতাকে হত্যা: ৪৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা

আপডেট : ০৯ জুন ২০২২, ১৯:২০

শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও সাবেক প্রধান শিক্ষক সাইফুল ইসলাম মালতের (৪২) হত্যার ঘটনায় মামলা হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (৯ জুন) দুপুরে নিহতের ভাই মো. সামাদ বাদী হয়ে ৪৭ ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন। বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জাজিরা থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান। ওই রাতেই হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে আটক সুজন ফকির (৩০) নামের যুবককে আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, জাজিরা পৌরসভার ৫ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ইলিয়াছ মাদবর ও উপজেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি সেলিম মাদবর গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশের ধারণা। নিহত সাইফুল ইসলাম ইলিয়াছ মাদবর পক্ষের সমর্থক ছিলেন। মামলার আসামিরা সবাই সেলিম মাদবরের সমর্থক এবং তারই ইন্ধনে এমন ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যায়। এর আগেও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুই গ্রামের মধ্যে মারামারি-ভাঙচুরের ঘটনা ঘটানো ছাড়াও হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে।   

প্রত্যক্ষদর্শী, পুলিশ ও নিহত সাইফুল ইসলামের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গত মঙ্গলবার রাতে সাইফুল জাজিরা উপজেলা সদর থেকে বাড়ি ফেরার সময় দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হন। এ সময় তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে রাস্তায় ফেলে রেখে যায়। পরে খবর পেয়ে স্বজনেরা তাকে উদ্ধার করে জাজিরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। অবস্থার অবনতি হলে রাতেই তাকে ঢাকায় পাঠানো হলে রাত একটার দিকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

সাইফুল ইসলামের ভাই মো. সামাদ বলেন, ‘আওয়ামী লীগের নেতা–কর্মীদের হাতে আমার ভাই প্রাণ হারাবে, সেটা কখনো কল্পনা করতে পারিনি। আমরা সাবেক সংসদ সদস্য মোজাম্মেল হকের অনুসারী। এ কারণে একটি পক্ষ আমাদের কোণঠাসা করে রাখতো। তারা গত বছর ২৫ জুলাইও আমার ভাইয়ের ওপর হামলা করেছিল। তখন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা ও পুলিশ আমাদের পাশে দাঁড়ায়নি। তখন থানায় মামলা নিলে এখন তাকে প্রাণ দিতে হতো না। এখন মামলা থেকে রক্ষা পেতে আসামিরা “রাজনৈতিক শেল্টার” পেতে পারে। তাদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হোক, এটাই এখন আমাদের চাওয়া।

জাজিরা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আওয়ামী লীগের স্থানীয় দুই গ্রুপের আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দ্বন্দ্বে এই হত্যাকাণ্ড ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় ৪৭ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা করা হয়েছে। এর মধ্যে একজন আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ইত্তেফাক/এমএএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

শরীয়তপুরে বঙ্গমাতার জন্মদিন পালিত 

ভেদরগঞ্জে পাটের উৎপাদন খরচ বাড়ছে

ইয়াবাসহ ছাত্রলীগ নেতা আটক

পাকুন্দিয়ায় যুবককে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় গ্রেফতার ২

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

বিনামূল্যে ২৩০ শিক্ষার্থীর রক্তের গ্রুপ নির্ণয়

পাকুন্দিয়ায় জমিসংক্রান্ত বিরোধে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

ভাতিজাকে নেতা না বানানোয় ছাত্রলীগের দুই নেতাকে রক্তাক্ত করলেন আওয়ামী লীগ নেতা!

ভোলায় রহিমের দাফন সম্পন্ন, দুই মামলায় আসামি ৪ শতাধিক