বুধবার, ১৭ আগস্ট ২০২২, ১ ভাদ্র ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

যশোরে ভুয়া চিকিৎসক আটক, ১৫ দিনের কারাদণ্ড

আপডেট : ০৯ জুন ২০২২, ১৯:৩৬

যশোরের ঘোপ নওয়াপাড়া রোডে অবস্থিত পিয়ারলেস হাসপাতাল থেকে হাবিবুর রহমান নামে এক ভুয়া চিকিৎসককে আটক করা হয়েছে। এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালত ঐ ভুয়া চিকিৎসককে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং একলাখ টাকা জরিমানা করে। প্রতারকের বাড়ি যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার গদখালী এলাকায়।

জেলা প্রশাসনের মিডিয়া সেল জানায়, ২৬৫/এ, ঘোপ নওয়াপাড়া রোডে অবস্থিত পিয়ারলেস ডায়াগনস্টিক সেন্টারে বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে একটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। এ সময় মো. হাবিবুর রহমানকে রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া অবস্থায় পাওয়া যায়। তাকে ডাক্তারি ডিগ্রির সনদ দেখাতে বলা হলে তা দেখাতে ব্যর্থ হন। ডিগ্রিধারী এবং বিএমডিসি সনদপ্রাপ্ত না হয়েও তার নামের আগে ডাক্তার পদবি ব্যবহার করছেন। তিনি বড় অঙ্কের ফি নিয়ে রোগীদের ভুল চিকিৎসা দেন এমন অভিযোগ আছে। বাংলাদেশ মেডিক্যাল ও ডেন্টাল কাউন্সিল আইন, ২০১০ অনুযায়ী ন্যূনতম এমবিবিএস অথবা বিডিএস ডিগ্রিপ্রাপ্তরা ছাড়া অন্য কেউ ডাক্তার পদবি ব্যবহার করতে পারবেন না। কিন্তু মো. হাবিবুর রহমান কোনো যোগ্যতা ছাড়াই সাইনবোর্ড, ভিজিটিং কার্ড এবং প্রেসক্রিপশনে ডাক্তার পদবি ব্যবহার করে প্রতারণা করে আসছিলেন। 

সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিক্যাল অফিসার ডা. মো. রেহেনেওয়াজ বলেন, বেশ কিছুদিন যাবৎ জানতে পারি পিয়ারলেস হাসপাতালে একজন নকল ডাক্তার চিকিৎসা দিচ্ছেন। বিষয়টি খোঁজখবর নিয়ে সত্যতা পাওয়ার পর সেখানে অভিযান চালানো হয়। 

ইত্তেফাক/এমএএম