বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

ট্রেনের শিডিউল বিপর্যয়, ভোগান্তিতে যাত্রীরা

আপডেট : ০৮ জুলাই ২০২২, ১০:৫০

ঈদুল আজহা উপলক্ষে গত মঙ্গলবার ট্রেনের যাত্রা শুরু হয়। প্রথম দুদিন কোনো শিডিউল বিপর্যয় না থাকলেও গতকাল বৃহস্পতিবার কিছু ট্রেন বিলম্বে ছেড়েছে। তবে শুক্রবার (৮ জুলাই) সকাল থেকে শিডিউল বিপর্যয়ে বেশ ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে ঈদযাত্রীদের। অধিকাংশ ট্রেনই নির্ধারিত সময়ের দেড়-দুই ঘণ্টা পর স্টেশন ছেড়ে যাচ্ছে।

শুক্রবার (৮ জুলাই) সকালে কমলাপুর রেলস্টেশনে দেখা যায়, যাত্রীরা ট্রেনের অপেক্ষায় বসে আছেন। কেউ কেউ স্টেশনেই শুয়ে আছেন। যাত্রীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সোমবারের সব ট্রেনই ২ থেকে ৩ ঘণ্টা দেরি করেছে।

কমলাপুর থেকে রাজশাহীর ধূমকেতু এক্সপ্রেস ট্রেনটি সকাল ৬টায় ছেড়ে যাওয়ার নির্ধারিত সময় ছিল। কিন্তু শিডিউল বিপর্যয়ের কারণে সকাল ৮টা তেও প্লাটফর্মে এসে পৌঁছায়নি ট্রেনটি। চিলাহাটির উদ্দেশে সকাল ৬টা ৪০ মিনিটে ছাড়ার কথা নীলসাগর এক্সপ্রেসের। সেটিও প্লাটফর্মে আসেনি সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত।

একই অবস্থা খুলনার উদ্দেশে সকাল ৮টা ১৫ মিনিটের সুন্দরবন এক্সপ্রেসের। সকাল ৮টা ৪৫ মিনিটে চট্টগ্রামের উদ্দেশে কর্নফুলি কমিউটার ছাড়ার কথা থাকলেও নির্দিষ্ট সময়ে তা প্লাটফর্মে দেখা যায়নি। ফলে অনেক যাত্রীই ভোগান্তিতে পড়েছেন।

যাত্রীদের অভিযোগ, এবার ঈদের আগে-পরে কোনো ট্রেনেরই শিডিউল ঠিক ছিল না। ট্রেনের ফিরতি টিকিট কাটতে লেগেছে দুই দিন আর যেতেও লাগছে দুই দিন।

এ বিষয়ে রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার মাসুদ সারোয়ার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি।

ইত্তেফাক/কেকে

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন