মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

৫২ শ্রমিক করোনা আক্রান্ত, বড়পুকুরিয়ায় কয়লা তোলা বন্ধ

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০২২, ১৩:৫৪

দিনাজপুরের বড় পুকুরিয়া কয়লা খনির ভূগর্ভে কর্মরত ৫২ জন শ্রমিক করোনা আক্রান্ত হওয়ার ৩ দিনের মাথায় কয়লা উত্তোলন বন্ধ হয়ে গেছে। তবে এর মধ্যেও অব্যাহত রয়েছে যন্ত্রপাতি অ্যাডজাস্টমেন্টের কাজ। আগামী ৭ থেকে ১০ দিনের মধ্যে পুনরায় কয়লা উত্তোলন শুরু হবে বলে প্রত্যাশা কর্তৃপক্ষের।

মুঠোফোনে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাইফুল ইসলাম জানান, নির্ধারিত সময়ের ২০ দিন আগে গত বুধবার (২৭ জুলাই) প্রাথমিকভাবে কয়লা উত্তোলন শুরু হয়। কয়লা উত্তোলনের পাশাপাশি নতুন ফেজে মেশিনারি অ্যাডজাস্টমেন্ট এর কাজ চলতে থাকে। এরইমধ্যে গত মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) খনির ভূগর্ভে কর্মরত ১৪৩ শ্রমিকের করোনা টেস্টের জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হয়। যাদের মধ্যে করোনা পজেটিভ শনাক্ত হন ১৬ জন। পরদিন আরও ৩০৫ জনের করোনা টেস্ট করা হলে ৩৪ জন করোনা পজেটিভ শনাক্ত হন।

খনি শ্রমিকরা ব্যাপকভাবে করোনা পজেটিভ শনাক্ত হওয়ায় খনির একটি ফ্লোরের সমস্ত বাংলাদেশি শ্রমিকদের খনির বাইরে বের করার পাশাপাশি অধিকাংশ বিদেশি শ্রমিককেও কর্মবিরতি দেওয়া হয়েছে। ফলে তিন দিনের মাথায় আবারও বন্ধ হয়ে যায় কয়লা উত্তোলন। তবে খনি এখনও অব্যাহত আছে ভূগর্ভস্থ ফেজে মেশিন অ্যাডজাস্টমেন্টের কাজ।

প্রসঙ্গত, প্রাথমিকভাবে কয়লা উত্তোলন শুরু হলে ধাপে ধাপে অন্যান্য মেশিনারি অ্যাডজাস্টমেন্টের মাধ্যমে কয়লা উত্তোলন কার্যক্রম শুরু হওয়ার কথা। কিন্তু শ্রমিকরা করোনা আক্রান্ত হওয়ায় প্রাথমিকভাবে কয়লা উত্তোলন বন্ধ আছে। কর্তৃপক্ষের দাবি, পরিস্থিতি ভাল হলে আগামী ৭-১০ দিনের মধ্যে আবারও কয়লা উত্তোলন শুরু হবে।

ইত্তেফাক/এসজেড

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন