বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

ভাড়া নৈরাজ্য ঠেকাতে ঢাকায় ১০ ভ্রাম্যমাণ আদালত

আপডেট : ০৭ আগস্ট ২০২২, ১৩:৪৬

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির পর নতুন করে গণপরিবহনের ভাড়া নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহণ সংস্থা (বিআরটিএ)। নির্ধারিত ভাড়ার বেশি নিলে ব্যবস্থা নিতে রাজধানীর গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোতে ১০টি ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করছেন সংস্থাটির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা।

রবিবার (৭ আগস্ট) সকাল থেকে ঢাকার গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোতে সড়কে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করছেন তারা।

শনিবার রাতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন সংস্থা (বিআরটিএ) ভবনে সংবাদ সম্মেলনে সড়ক সচিব এ বি এম আমিনুল্লাহ নুরী ভ্রাম্যমাণ আদালতে পরিচালনার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন। তিনি সে সময় সাতটি টিম কাজ করবে বলে তথ্য দিয়েছিলেন।

বিমানবন্দর এলাকায় দায়িত্ব পালন করা বিআরটিএর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সাজিদ আনোয়ার গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমাদের ১০টি টিম কাজ করছি। কোনোভাবে কিলোমিটার প্রতি আড়াই টাকার বেশি ভাড়া নেওয়া যাবে না। যারা নেবে তাদের বিরুদ্ধেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

কোন কোন বিষয়গুলো দেখা হবে, এমন প্রশ্নের জবাবে সাজিদ আনোয়ার বলেন, ‘বেশি ভাড়া নেওয়া, ওয়েবিলের নাম করে বাড়তি ভাড়া নেওয়া, গাড়ির রুট পারমিট, কাগজপত্র ঠিক আছে কি-না এসব বিষয় দেখা হবে।’

এর আগে শনিবার রাতে বৈঠক শেষে বিআরটিএ’র চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মাদ মজুমদার দাবি করেন, ‘অতিরিক্ত ভাড়া রোধে তাদের সাত জন ম্যাজিস্ট্রেট সব সময় রাস্তায় থাকেন। তারা সপ্তাহের ছয় দিন সড়কে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে কাজ করছেন।’

 

ইত্তেফাক/এসজেড