রোববার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

এসিল্যান্ডের ওপর হামলা: ৭ নারী গ্রেফতার

আপডেট : ২২ আগস্ট ২০২২, ১৮:৪৯

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের বলদীপাড়া-হলদীঘর গ্রামে এসিল্যাণ্ডের ওপর হামলা ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় মামলায় ৭ নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। রবিবার (২১ আগস্ট) দিবাগত রাতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। সোমবার (২২ আগস্ট) জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শাহজাদপুর সার্কেল) হাসিবুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

গ্রেফতারা হলেন, বলদীপাড়া-হলদীঘর গ্রামের আব্দুল মজিদের স্ত্রী সেলিনা খাতুন, আল মাহমুদের স্ত্রী ঝরনা খাতুন, হুমায়ুন কবীরে স্ত্রী ওজুফা বেগম, মো. নজরুল ইসলামের স্ত্রী হুসনেয়ারা, মো. আনসার আলীর স্ত্রী মালেকা খাতুন, জামাল প্রমানিকের স্ত্রী আকলিমা খাতুন ও আব্দুল আলিমের স্ত্রী সুফিয়া খাতুন। 

গতকাল রবিবার গ্রামবাসীর হামলায় সহকারী কমিশনার (ভূমি) লিয়াকত সালমান গুরুতর আহত হন ও ইউএনও’র গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এদিন রাতেই উপজেলা ভূমি অফিসের পেশকার আব্দুল হাই বাদী হয়ে ৫৪ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত পরিচয় আরও ১২০ নারী-পুরুষকে আসামি করে মামলা করেন।

ছবি: সংগৃহীত

জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শাহজাদপুর সার্কেল) হাসিবুল ইসলাম বলেন, ‘রবিবার রাতেই ভূমি অফিসের পেশকার আব্দুল হাই বাদী হয়ে ৫৪ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত পরিচয় আরও ১২০ নারী ও পুরুষকে আসামি করে মামলা করেন। মামলার পরপরই উপজেলার বলদিপাড়া ও হলদিঘর গ্রামে অভিযান চালিয়ে ৭ নারীকে গ্রেফতার করা হয়।’ ভিডিও ফুটেজ দেখে অন্য আসামিদেরও গ্রেফতার করা হবে বলে তিনি জানান।  

উল্লেখ্য, আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর নির্মাণের জন্য বলদীপাড়া-হলদীঘর গ্রামের সরকারের নামে রেকর্ডকৃত ১ দশমিক ২২ একর খাস সম্পত্তি চিহ্নিত করা হয়। সেখানে আশ্রয়ণ প্রকল্পের নির্মাণ কাজের উদ্যোগ নেওয়া হলে গ্রামের একটি মহল ওই জায়গাটি খেলার মাঠ হিসেবে দাবি করে। এক পর্যায়ে গ্রামের ওই মহলটিই খেলার মাঠে আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর নির্মাণের বাধার সৃষ্টি করে এবং মানববন্ধনসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে। এদিকে রবিবার ইউএনও তরিকুল ইসলাম ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) লিয়াকত সালমান আশ্রয়ণ প্রকল্পের জায়গা পরিদর্শনে গেলে ওই গ্রামের নারী-পুরুষ লাঠি-সোটা নিয়ে অতর্কিতে তাদের ওপর হামলা চালায় এবং ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। এ সময় ইটের আঘাতে সহকারী কমিশনার লিয়াকত সালমান গুরুতর আহত হন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। 

ইত্তেফাক/এএএম