শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

স্কুলছাত্রী হত্যার অভিযোগে বাবা ও সৎ মা কারাগারে 

আপডেট : ০৩ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২:৫০

সাতক্ষীরার তালার পল্লীতে স্কুলছাত্রীকে হত্যার অভিযোগে বাবা ও সৎ মাকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১ সেপ্টেম্বর) রাতে গ্রেফতার করে শুক্রবার দুপুরে কারাগারে পাঠানো হয়। 

শনিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তালা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান। 

গ্রেফতারকৃতরা হলেন উপজেলার তেঁতুলিয়া ইউনিয়নের সুকদেবপুর গ্রামের মৃত আফতাব মাহমুদে ছেলে মফিজুল মাহমুদ (৩২) ও তার স্ত্রী শেফালী বেগম (২৫)।

এদিকে, ১ সেপ্টেম্বর আখির মা অন্তরা বেগম বাদী হয়ে তালা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পরপরই দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করে তালা থানা পুলিশ। 

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ৩০ আগস্ট (মঙ্গলবার) উপজেলার তেঁতুলিয়া ইউনিয়নের সুকদেবপুর গ্রামের মফিজুল মাহামুদের মেয়ে ও সুকদেবপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী আখি খাতুন রাতে নিজের ঘরে ঘুমাতে যান। বুধবার সকালে আখি ঘুম থেকে না উঠায় পরিবারের সদস্যরা ডাকাডাকি করে কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙে তাকে উদ্ধার করা হয়। স্থানীয় চিকিৎসক আখিকে মৃত ঘোষণা করেন। 

আরও জানা যায়, পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে লাশ ময়না তদন্তের জন্য সাতক্ষীরা মর্গে প্রেরণ করে। অভিযোগ উঠে সৎ মা শিফালী বেগম নানা বাহানাসহ কারণে-অকারণে আখিকে মারপিট করতেন এবং আখির বাবা বাড়িতে না থাকার সুযোগ কাজে লাগিয়ে আখিকে খেতেও দিতেন না। ধারণা করা হচ্ছে কয়েক দিন খেতে না দেওয়াসহ অসহনীয় মারপিটের কারণে মৃত্যুবরণ করেছেন আখি।

তালা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ ফকরুল আলম খান বলেন, ‘আখির মায়ের মামলা দায়ের পর রাতেই ২ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আসামিদের বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।’

ইত্তেফাক/এইচএম