শনিবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

টাকার অভাবে পৃথক করা যাচ্ছে না শিশু খাদিজা-সুমাইয়াকে

আপডেট : ১২ নভেম্বর ২০২২, ০২:৩০

খাদিজা আর সুমাইয়া যমজ দুই বোন। দুজনের হাত-পা আলাদা হলেও মাজা থেকে শরীর জোড়া লাগানো। ফলে ধীরে ধীরে বয়স বাড়লেও তারা হাঁটাচলা করতে পারছে না। এভাবেই বড় হচ্ছে তারা।

সাভারের নবীনগরের পলাশবাড়ী এলাকার সেলিম ও সাথী আক্তার দম্পতির সন্তান এই খাদিজা ও সুমাইয়া। জোড়া লাগানো যমজ এ দুই শিশু সন্তানকে নিয়ে বিপাকে পড়েছেন ঐ দম্পতি। শিশু দুটিকে অপারেশন এর মাধ্যমে আলাদা করতে অনেক অর্থের প্রয়োজন। তাই অসহায় বাবা-মা অর্থের জন্য মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন।

শিশু দুটির পিতা মুদি দোকানি সেলিম মিয়া জানান, গত ১৩ মাস আগে তার স্ত্রী সাথী আক্তার সাভারের সুপার ক্লিনিকে সিজারের মাধ্যমে দুই মেয়ে শিশুর জন্ম দেন। জন্ম থেকেই দুটি শিশু জোড়া লাগানো। জন্মের পর শিশু দুটি অসুস্থ হয়ে পড়লে তাদেরকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে শিশু দুটিকে অপারেশনের মাধ্যমে আলাদা করার পরামর্শ দিয়েছেন ডাক্তাররা। কিন্তু সেজন্য অনেক টাকার প্রয়োজন। তাই টাকা ছাড়া অপারেশন হচ্ছে না শিশু দুটির। শিশু দুটির দরিদ্র পিতা শিশুদের চিকিৎসার জন্য সমাজের হৃদয়বান ব্যক্তিদের সাহায্য কামনা করেছেন।

ইত্তেফাক/এমএএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন