বুধবার, ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৫ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

‘এবারও সুষ্ঠুভাবে হজ আয়োজনের জন্য সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা থাকবে’

রিয়াদে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান

আপডেট : ১৫ জানুয়ারি ২০২৩, ১৩:১৩

গেল বছরের মতো এবারও সুন্দর, সুষ্ঠুভাবে হজ আয়োজনে সরকারের সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে। এ বছর এক লক্ষ ২৭ হাজার ১৯৮ জন বাংলাদেশ থেকে হজ পালন করার সুযোগ পাবেন। ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান এম পি। শনিবার (১৪ জানুয়ারি) রিয়াদের বাংলাদেশ দূতাবাসে স্থানীয় প্রবাসীদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় একথা বলেন। এ সময় দূতাবাসের কর্মকর্তা, কর্মচারীরাও উপস্থিত ছিলেন। মতবিনিময় সভায় বাংলাদেশ কমিউনিটির বিভিন্ন পেশার প্রবাসীরা যোগ দেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বিপিএম (বার)। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ধর্ম মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মতিউল ইসলাম ও হজ কাউন্সিলর মোঃ জহিরুল ইসলাম।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান বলেন, করোনার পর বিগত বছরে স্বল্প সময়ে আমরা সকলে মিলে চেষ্টা করেছি সুন্দর ও সুষ্ঠভাবে হজ আয়োজন করার। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের পাশাপাশি সৌদি আরবের বাংলাদেশ হজ মিশন, জেদ্দাস্থ বাংলাদেশ কনস্যূলেট, ও রিয়াদস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস হজ আয়োজনে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেছে। তিনি হজ আয়োজনে সার্বিক সহযোগিতার জন্য সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বিপিএম (বার) কে বিশেষ ধন্যবাদ জানান।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী হজ আয়োজন আরও সুন্দর করার জন্য প্রবাসীদের সাথে এই মতবিনিময় সভায় অংশগ্রহণ করেছেন বলে জানান। প্রবাসীদের বিভিন্ন পরামর্শ অনুযায়ী আগামীতে হজ আয়োজন আরও সুন্দর করার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান বলেন, আগামী ১৬ তারিখে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে নির্মিত ৫০টি মডেল মসজিদ উদ্বোধন করা হবে এবং এ বছর আরও অনেকগুলো মডেল মসজিদ নির্মাণ সম্পন্ন করা হবে। ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ২০৪১ সালে বাংলাদেশ একটি উন্নত সমৃদ্ধশালী স্মার্ট দেশে উন্নীত হবে।

গত ৯ জানুয়ারি সৌদি আরব হজ এবং উমরা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে বাংলাদেশের ২০২৩ সালের হজের চুক্তি হয়। এ সময় ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান, সৌদি আরব হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী ড. তৌফিক আল রাবিয়াহ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বলেন, সুন্দরভাবে হজ পালনে আমাদের সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা সবসময়ই অব্যাহত থাকবে। তিনি পবিত্র হজের সময় সেচ্ছাসেবী হিসেবে কাজ করার জন্য প্রবাসী বাংলাদেশীদের এগিয়ে আসার আহবান জানান।

এ সময় আরও বক্তব্য দেন ধর্ম মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মতিউল ইসলাম ও সৌদি আরবের হজ মিশনের কাউন্সিলর মোঃ জহিরুল ইসলাম। বক্তারা হজের সময় বাংলাদেশ থেকে আসা হজযাত্রীদের সহযোগিতার জন্য কমিউনিটির সদস্যদের সেচ্ছাসেবী হিসেবে কাজ করার আহবান জানান। এ ব্যাপারে হজ মিশন থেকে সকল সহযোগিতা করা হবে বলে উল্লেখ করেন। হজ কাউন্সিলর এ সময় প্রবাসীদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। অনুষ্ঠানে প্রায় ২২ জন প্রবাসী বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ দেন।

ইত্তেফাক/এসসি