শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

বীর মুক্তিযোদ্ধাকে গাছে বেঁধে নির্যাতন, জমি দখলের অভিযোগ 

আপডেট : ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯:১৫

চট্টগ্রামের হাটহাজারীতে আহমদ হোসেন নামে এক বীর মুক্তিযোদ্ধাকে গাছের সঙ্গে বেঁধে মারধর করে জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে এ ঘটনা ঘটলেও মঙ্গলবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বিকালে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিও ভাইরাল হলে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়।

বীর মুক্তিযোদ্ধাকে নির্যাতনের ঘটনায় ৪ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও কয়েকজনকে আসামি করে মামলা হয়েছে। পুলিশ নাহিদা সুলতানা (৩৫) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে। 

স্থানীয়রা জানায়, ১৫ ফেব্রুয়ারি লোকমান হাকিম এবং তার স্বজনরা বীর মুক্তিযোদ্ধা আহমদ হোসেনকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করে। পরে তার জমি দখল করে দেয়াল নির্মাণ করা হয়। মঙ্গলবার রাতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মুক্তিযোদ্ধাকে নির্যাতনের ঘটনা ভাইরাল হয়। খবর পেয়ে রাতেই ভুক্তভোগী বীর মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে যান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শাহিদুল আলম ও ওসি রুহুল আমিন সবুজ।

উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরুল আলম বলেন, এমন ন্যক্কারজনক কর্মকাণ্ডে জড়িতদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানায়। একজন মুক্তিযোদ্ধাকে বেঁধে রেখে জায়গা দখল করার বিষয়টি অমানবিক। এ ঘটনায় দোষীদের আইনের আওতায় এনে ন্যায় বিচার করার জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট জোর দাবি জানান।

ফরহাদাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান শওকত আলম বলেন, আসামিদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য প্রশাসনকে অনুরোধ করা হয়েছে।

হাটহাজারী মডেল থানার ওসি রুহুল আমিন সবুজ বলেন, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তার নাহিদা সুলতানাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিদুল আলম জানান, জমি দখলমুক্ত করা হয়েছে। ভুক্তভোগী মুক্তিযোদ্ধা ও তার পরিবারকে আইনি সহায়তা দেওয়া হবে।

ইত্তেফাক/এবি/পিও