শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

চাঁদাবাজির অভিযোগে পুলিশের এএসআইসহ ৫ জন আটক

আপডেট : ০৪ মার্চ ২০২৩, ২০:৫২

সাতক্ষীরার আশাশুনিতে চাঁদাবাজির অভিযোগে এএসআইসহ ৫ জনকে আটক করেছে পুলিশ। শুক্রবার (৩ মার্চ) উপজেলার কল্যাণপুর এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি রিভলবার, ৮ রাউন্ড গুলিসহ একটি ম্যাগাজিন, দুটি হাতকড়া ও একটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।

আটককৃতরা হলেন উপজেলার গদাইপুর এলাকার আব্দুল আলিম সানার ছেলে রুবেল হোসেন (৩০), পিরোজপুর সদর উপজেলার পান্তাডুবি এলাকার রহম আলীর ছেলে মনির হোসেন (৩৫), একই এলাকার আনোয়ার শিকদারের ছেলে সোহেল শিকদার (৩৩), চরলোহারকাটি এলাকার ইউনুছ মৃধার ছেলে আবুল কালাম মৃধা (৩৫) ও পূর্ব শিকারপুর এলাকার আব্দুল মালেক মিয়ার ছেলে সাইফুল ইসলাম (৩২)। আশাশুনি উপজেলার কল্যাণপুর এলাকার মৃত গণি মিস্ত্রীর ছেলে নজরুল ইসলাম পলাতক রয়েছেন। আটক রুবেল হোসেন পিরোজপুর সদর থানার এএসআই হিসেবে কর্মরত। 

পুলিশ জানায়, শুক্রবার রাতে উপজেলার কল্যাণপুর এলাকায় গিয়ে এএসআই রুবেল, একই এলাকার নজরুলসহ ৬ জন মিলে অনলাইনে জুয়া খেলা চালানোর অভিযোগে স্থানীয় আশিকুর রহমান নামে একজনকে র‌্যাব পরিচয়ে আটক করে। একপর্যায়ে তারা আশিকুরের কাছে ১ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। আচরণ সন্দেহজনক হওয়ায় স্থানীয়রা তাদের আটক করে। এ সময় কৌশলে পালিয়ে যায় নজরুল ইসলাম। পরে ভোর সাড়ে ৪টার দিকে আটক ৫ জনকে স্থানীয়রা পুলিশের হাতে তুলে দেন।

আশাশুনি থানার ওসি মমিনুল হক বলেন, চাঁদাবাজির অভিযোগ স্থানীয়রা এএসআই রুবেলসহ ৫ জনকে আটক করে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী আশিকুর বাদী হয়ে মামলা করেছেন। 

পিরোজপুর সদর থানার ওসি মাসুদুজ্জামান বলেন, রুবেল হোসেন পিরোজপুর সদর থানায় এএসআই পদে কর্মরত। শুক্রবার রাতে তাকে পাওয়া যায়নি, ছুটিও নেননি। শনিবার সকালে শুনেছেন আশাশুনিতে ধরা পড়েছে।

ইত্তেফাক/এবি/পিও