বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

ডেঙ্গু মোকাবিলায় ভৈরবীর ‘মশাকথন’

আপডেট : ১৬ আগস্ট ২০২৩, ২২:১০

সারাদেশে আতঙ্ক হয়ে দাঁড়িয়েছে ডেঙ্গু। প্রতিনিয়তই বেড়ে চলেছে এর প্রকোপ। ডেঙ্গু মোকাবিলায় সরকারসহ সাধারণ মানুষের মাঝে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে কাজ করে যাচ্ছে বিভিন্ন সংগঠন, নানা পর্যায়ের মানুষ। তারই প্রচেষ্টায় ব্যতিক্রম এক আয়োজন করে দেশীয় সংস্কৃতি গবেষণা এবং গীতরঙ্গ পরিবেশনা কেন্দ্র "ভৈরবী"।

মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) জাতীয় শোক দিবসে ‘শোক থেকে হোক শক্তি’ এই স্লোগানকে প্রতিপাদ্য করে আয়োজন করে একটি পথনাটকের। ভৈরবীর প্রতিষ্ঠাতা এবং কার্যনির্বাহী প্রধান ইলিয়াস নবী ফয়সালের রচনা এবং নির্দেশনায় ভৈরবী গীতরঙ্গ দলের পরিবেশনায় ‘মশাকথন’ নামের এই পথনাটকের আয়োজন করা হয়।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় গ্রন্থাগার প্রাঙ্গণ, পায়রা চত্তর, টিএসসি এবং কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার সহ শহরের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে এই পথনাটকটি উপস্থাপন করা হয়। নাটকের সংলাপের মাধ্যমে ডেঙ্গু মোকাবিলার বিভিন্ন প্রতিকার, প্রতিষেধক এবং প্রতিরোধের উপায় সাধারণ জনগণের সম্মুখে তুলে ধরা হয়।

এ বিষয়ে ভৈরবীর ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহীদুজ্জামান খান শাহী বলেন, ভৈরবী দেশের জন্য কাজ করে, দেশের মানুষের জন্য কাজ করে। আমরা আমাদের স্থান থেকে চেষ্টা করেছি জনসচেতনতামূলক একটি আয়োজন উপস্থাপন করতে। আশা করছি এতে করে আমরা দেশীয় স্বার্থে ভূমিকা রাখতে পেরেছি।

পথনাটকটির রচয়িতা এবং নির্দেশক ইলিয়াস নবী ফয়সাল জানান, দেশের চলমান ডেঙ্গু পরিস্থিতি মোকাবেলার স্বার্থে আমাদের সকলের উচিৎ এগিয়ে আসা। সচেতনতা বৃদ্ধি ছাড়া এই কঠিন সময়কাল অতিক্রম করা কষ্টসাধ্য। এভাবেই আগামী দিনগুলোতে দেশের জন্য কাজ করার আহ্বান জানান তিনি।

উল্লেখ্য, দেশের হারিয়ে যাওয়া সংস্কৃতি রক্ষায় এবং প্রচারে কাজ করে যাচ্ছে ভৈরবী। মূলত তরুণ প্রজন্মের হাত ধরেই দেশীয় সংস্কৃতি সত্ত্বা বাঁচিয়ে রাখা এবং প্রচার-প্রসারেই বিগত তিন বছর ধরে তএসব কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে এ সংগঠন।

ইত্তেফাক/এবি/পিও