মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১০ বৈশাখ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দিতে হবে: এনামুল হক শামীম

আপডেট : ২৯ জানুয়ারি ২০২৪, ২২:১৫

সাবেক পানিসম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম এমপি বলেছেন, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, বয়স্কভাতা, বিধবাভাতাসহ সকল সেবা মানুষের দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে দিতে হবে। দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে প্রশাসনকে কঠোর ভূমিকা রাখতে হবে। দেশের মানুষ যে আশা ও স্বপ্ন নিয়ে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনাকে পঞ্চম বারের মতো ক্ষমতায় এনেছে। সেই আশা ও স্বপ্নপূরণে কাজ করতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে চলেছে। উন্নয়নের গতি অব্যাহত থাকলে এশিয়ার সেরা দেশ হবে বাংলাদেশ। তাই যার যার অবস্থান থেকে সততার সঙ্গে কাজ করে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে।

সোমবার (২৯ জানুয়ারি) সকালে শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জে উপজেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটি এবং উপজেলা পরিষদের মাসিক সাধারণ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাঁর সততা ও মেধা দিয়ে বাংলাদেশ সৃষ্টি করেছেন। আর বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর সততা, প্রজ্ঞা, মেধা এবং রাজনৈতিক দূরদর্শিতা দিয়ে এমন এক অনন্য উচ্চতায় পৌঁছে গেছেন যে, শুধু বাংলাদেশ নয়-আন্তর্জাতিক মহল তার প্রতি খুবই শ্রদ্ধাশীল। তাই আমাদের সবাইকে কাজ করতে হবে। সকল ক্ষেত্রে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে। সরকারের সকল সেবার মান বৃদ্ধি করে মানুষের দ্বারপ্রান্তে সেবার মান নিশ্চিত করতে হবে।

সাবেক পানিসম্পদ উপমন্ত্রী আরও বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার বদৌলতে আমরা শরীয়তপুরকে দেশের মধ্যে একটি অন্যতম উন্নত সমৃদ্ধ জেলায় রূপান্তরিত করতে কাজ করে চলছি। জেলার শিক্ষা, স্বাস্থ্য, বিদ্যুৎ ও যোগাযোগসহ অবকাঠামোগত সকল উন্নয়ন করতে বদ্ধপরিকর। বাল্য বিবাহ বন্ধেও সরকার কার্যকর পদক্ষেপ নিচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রশংসা করে এনামুল হক শামীম আরও বলেন, শেখ হাসিনার কারণে পদ্মা সেতু নির্মিত হয়েছে। শেখ রাসেল সেনানিবাস হয়েছে। শেখ হাসিনা তাঁতপল্লী নির্মাণ চলছে। মেঘনা সেতু নির্মাণেও ডিজাইন প্রণয়নে কাজ চলছে। শরীয়তপুরে ফোর লেনের কাজও এগিয়ে চলছে। শরীয়তপুরে বঙ্গবন্ধু কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে। ইতোমধ্যেই নড়িয়ায় নদী ভাঙন আর নেই, সেখানে পর্যটন এলাকায় রূপ নিয়েছে। জয়বাংলা এভিনিউ হয়েছে।

এনামুল হক শামীম আরও বলেন, সখিপুরে সোনার বাংলা এভিনিউ, জাজিরায় রূপসী বাংলা ও শরীয়তপুরে কীর্তিনাশার ভাঙনরোধেও কাজ চলছে। অন্যান্য এলাকার নদী ভাঙনে সমস্যা নিরসনেও কাজ করছি আমরা। নড়িয়ায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হচ্ছে। পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট অনুমোদন হয়েছে। শরীয়তপুরের পণ্যও এখন ইউরোপে রপ্তানি হয়। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার বদৌলতে এসব সম্ভব হচ্ছে।

এনামুল হক শামীম বলেন, সন্ত্রাস, মাদক, চাঁদাবাজ ও অপপ্রচার প্রতিরোধে কঠোর ব্যবস্থা নিতে হবে। বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা কোনো দিন কোনো অন্যায়ের সঙ্গে আপস করে না। কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়, যেই অপরাধ করবে তার বিরুদ্ধেই কঠোর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। অন্যায়কারী ও অন্যায়কারীর প্রশ্রয়দাতাদের কোনো ছাড় নেই। এ ব্যাপারে জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসনসহ সকলের সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে।

এ সময় আরও বক্তব্য দেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অনল কুমার দে, ভেদরগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির মোল্যা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রাজিবুল ইসলাম সহ উপজেলায় কর্মরত বিভিন্ন বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিবৃন্দ।

ইত্তেফাক/এমএএম