বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

গোপালগঞ্জে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে গাঁজার বাগান!

আপডেট : ২১ মার্চ ২০২৪, ২০:৪১

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে দেখা মিলছে গাঁজা বা ভাং গাছের বাগান। হাসপাতালের স্টাফ কোয়ার্টারের পথের পাশে সবজির বাগান আর মূল গেট দিয়ে জরুরি বিভাগে যাওয়ার পথে অসংখ্য গাঁজা গাছ দেখা যায়। এসব গাছ থেকে গন্ধও ছড়াচ্ছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উত্তর পাশের বদ্ধ জায়গাতেও ছোট-বড় অসংখ্য নেশাজাতীয় এসব গাছ রয়েছে। কোনো কোনো গাছ কয়েক ফুট লম্বাও হয়েছে।

এদিকে, খবর পেয়ে বুধবার (২০ মার্চ) বিকেলে র‍্যাব-৬ এর কাশিয়ানী উপজেলার ভাটিয়াপাড়া ক্যাম্পের সদস্যরা জায়গাগুলো পরিদর্শন করে গাছগুলো তুলে নিয়ে যান।

র‍্যাব সদস্যরা জায়গা পরিদর্শন করে গাছগুলো তুলে নিয়ে যান

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) ডা. আমিনুল ইসলাম বলেন, এসব গাছ আগে আরও বেশি ছিল। অনেক গাছ কেটে পরিষ্কার করেছি, শিকড় থেকে আবার হয়। সকলের সামনেই এই গাছগুলো বেড়ে উঠেছে। তবে এটা গাঁজার গাছ নাকি ইন্ডিয়ান ভাং গাছ, তা আমাদের জানা ছিল না।

র‍্যাবের কাশিয়ানী উপজেলার ভাটিয়াপাড়া ক্যাম্প কমান্ডার মো. রাসেল সাংবাদিকদের বলেন, আমরা ১২০০ নেশাজাতীয় গাছ উদ্ধার করে কাঁচা অবস্থায় থানায় হস্তান্তর করেছি। পুলিশ আদালতের আদেশে ব্যবস্থা নেবে। তবে এগুলো গাঁজা বা ভাং গাছ কিনা তা তিনি বলতে পারেননি।

গোপালগঞ্জের বন সংরক্ষক বিবেকানন্দ বিশ্বাস এই গাছগুলোকে প্রাথমিকভাবে ভাং গাছ (নেশাজাতীয় গাছ) হিসেবে উল্লেখ করেন।

অন্যদিকে, গোপালগঞ্জ সরকারি বঙ্গবন্ধু কলেজের উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান সুকলাল বিশ্বাস এগুলোকে গাঁজা গাছ হিসেবে চিহ্নিত করেছেন।

ইত্তেফাক/এসকে