বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

ফিলিস্তিনকে জুলাইয়ের মধ্যে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দেবে স্পেন

আপডেট : ০৩ এপ্রিল ২০২৪, ১১:০৬

স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো সানচেজ জানিয়েছেন, আগামী জুলাই মাসের মধ্যে ফিলিস্তিনকে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দেবে তার দেশ। নিজের সঙ্গে জর্ডান সফরে যাওয়া সাংবাদিকদের মঙ্গলবার এ কথা জানান স্প্যানিশ প্রধানমন্ত্রী।

এছাড়া দখলদার ইসরায়েলকে রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিতে আরব দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানাবেন বলেও জানিয়েছেন পেদ্রো। জর্ডান সফর শেষে তিনি সৌদি আরব ও কাতারে যাবেন।

ফিলিস্তিনকে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দিতে ইউরোপের অন্যান্য দেশগুলোকেও রাজি করানোর চেষ্টা করছে স্পেন। ইতিমধ্যে স্লোভেনিয়া, মাল্টা এবং আয়ারল্যান্ড এতে সম্মতি জানিয়েছে। গত সপ্তাহে এ চারটি দেশ একটি যৌথ বিবৃতি দেয়। এতে তারা জানায়, যখন উপযুক্ত সময় আসবে তখনই ফিলিস্তিনকে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দেওয়া হবে।

স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম এল পেইস জানিয়েছে, স্পেনের প্রধানমন্ত্রীর বিশ্বাস- তারা যখন ফিলিস্তিনকে স্বাধীন দেশের স্বীকৃতি দেবেন তখন ইউরোপের অন্যান্য দেশগুলোও তাদের দেখানো পথে এগোবে। মূলত গাজায় চলমান যুদ্ধ বন্ধ এবং আগামী নভেম্বরে হতে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে স্বীকৃতি দেওয়ার বিষয়টি গতি পেতে পারে। নভেম্বরের নির্বাচন শেষে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে আবারও ডোনাল্ড ট্রাম্পকে দেখা যেতে পারে।

এদিকে, ইউরোপের চারটি দেশের ফিলিস্তিনকে স্বীকৃতি দেওয়ার বিষয়টি নিয়ে প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে দখলদার ইসরায়েল। তারা বলেছে, এই মুহূর্তে ফিলিস্তিনকে স্বীকৃতি দেওয়া মানে সশস্ত্র গোষ্ঠীদের পুরস্কৃত করা। মধ্যপ্রাচ্য ও ইসলামিক দেশগুলো ফিলিস্তিনকে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দিলেও ইউরোপের বেশিরভাগ দেশ এখনো এই পথে এগোয়নি।

অপরদিকে, ফিলিস্তিনি ছিটমহল গাজায় ইসরায়েলের বিমান হামলায় এনজিও ওয়ার্ল্ড সেন্ট্রাল কিচেন (ডব্লিউসিকে) এর সাত কর্মী নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে পোল্যান্ড, ব্রিটেন ও অস্ট্রেলিয়ার তিন এবং যুক্তরাষ্ট্র-কানাডার এক দ্বৈত নাগরিক রয়েছেন। এনিয়ে গাজায় গত ৭ অক্টোবর থেকে চলা ইসরায়েলি আগ্রাসনে এ পর্যন্ত শতাধিক মানবাধিকার ও স্বাস্থ্যকর্মী নিহত হয়েছে।

ইত্তেফাক/এসকে