বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

চলতি বছর শেষে গাঁজাকে মাদকদ্রব্যের তালিকাভুক্ত করবে থাইল্যান্ড

আপডেট : ০৮ মে ২০২৪, ১৯:২৪

চলতি বছরের শেষের দিকে গাঁজাকে পুনরায় মাদকদ্রব্য হিসেবে তালিকাভুক্ত করবে থাইল্যান্ড। দেশটির প্রধানমন্ত্রী সেরেথা থাভিসিন বুধবার এ কথা বলেছেন। খবর রয়টার্সের।

থাইল্যান্ডে গাঁজার বিনোদনমূলক ব্যবহার বৈধ ঘোষণা করা হয় দুই বছর আগে। তবে এই সময় এসে এটিকে মাদকদ্রব্যের তালিকাভুক্ত করার পদক্ষেপকে আশ্চর্যজনক বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এক্স-এ সেরেথা থাভিসিন বলেন, ‘আমি চাই স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় নিয়মগুলো সংশোধন করুক এবং গাঁজাকে মাদক হিসেবে পুনরায় তালিকাভুক্ত করুক। শুধু স্বাস্থ্য ও চিকিৎসার উদ্দেশ্যে গাঁজার ব্যবহার বৈধ করে নিয়ম জারি করা উচিত মন্ত্রণালয়ের।

গত বছর দেশটির ক্ষমতায় আসেন থাভিসিন। এরপর থেকেই তিনি গাঁজার বিনোদনমূলক ব্যবহারের বৈধতা নিয়ে আপত্তি জানিয়ে আসছিলেন। তার মতে, এটি থাইল্যান্ডে বিদ্যমান মাদকের অপব্যবহার সমস্যাকে আরও বাড়িয়ে তুলতে পারে।

গাঁজাকে ২০১৮ সালে চিকিৎসায় ব্যবহার ও ২০২২ সালে বিগত সরকারের অধীনে বিনোদনমূলক ব্যবহারে বৈধতা দেওয়া হয়। এর ফলে থাইল্যান্ডে গাঁজা জাতীয় পণ্য বিক্রি করা ছোট ব্যবসার দ্রুত বৃদ্ধি ঘটে। এ জাতীয় ব্যবসার সংখ্যা এখন কয়েক হাজারে পৌঁছেছে।

তবে দেশটিতে গাঁজা নিয়ে এমন নিয়মকে মন্ত্রীদের স্বেচ্ছাচারিতা বলেও সমালোচনা করেছেন অনেকে। কেননা প্রতিবারই নতুন সরকার এসে দেশটিতে গাঁজার ব্যবহারের ওপর নিজেদের মতো নিয়ম চালু করেন। এর ফলে বিভ্রান্তিও সৃষ্টি হয়।

ইত্তেফাক/এসএটি