গুঁড়িয়ে দেওয়া হলো বুড়িগঙ্গার তীরে অবৈধ স্থাপনা

গুঁড়িয়ে দেওয়া হলো বুড়িগঙ্গার তীরে অবৈধ স্থাপনা
বিআইডব্লিউটিএ'র উচ্ছেদ অভিযানে একটি ভবন ভেঙে দেওয়া হচ্ছে। ছবি: ইত্তেফাক

কামরাঙ্গীরচর এলাকায় বুড়িগঙ্গার তীরে নদী দখল করে গড়ে তোলা অবৈধ স্থাপনাগুলো গুঁড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষ বিআইডব্লিউটিএ।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে কামরাঙ্গীরচর এলাকায় চতুর্থ দিনের মতো এই অভিযান পরিচালনায় নেতৃত্ব দেন বিআইডব্লিউটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাহবুব জামিল। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বিআইডব্লিউটিএ’র যুগ্ম পরিচালক গুলজার আলী।

আরও পড়ুন: বুড়িগঙ্গার তীরে ৭৩টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

পুনঃদখল রোধে বিশেষ এ উচ্ছেদ অভিযানে বহুতল ভবন, আধাপাকা বিল্ডিং ও দোকানপাটসহ প্রায় ১৭টি অবৈধ স্থাপনা গুঁড়িয়ে দিয়ে নদীর তীর দখলকৃত ০.৫০ একর জায়গা উদ্ধার করেন তারা।

বহুতল ভবন ভাঙা হচ্ছে। ছবি: ইত্তেফাক

এসময় স্থানীরা অভিযোগ করে বলেন, কোন প্রকার পূর্ব নোটিশ ছাড়াই তাদের বসবাসরত ভবনগুলো গুঁড়িয়ে দিয়েছে বিআইডব্লিউটিএ

আরও পড়ুন: নদী তীর পুনর্দখলের চেষ্টা করলে আইনের আওতায় আনা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মোহাম্মদ শেকানদার ব্যাপারী নামের এক ভবন মালিক বলেন, সিটি জরিপসহ বিভিন্ন জরিপে তাদের মালিকানা থাকলেও সে সকল দলিল বিআইডব্লিউটিএ কর্তৃপক্ষকে দেখালেও কোন আমলে নিচ্ছে না তারা। এ বিষয়ে আদলতে উচ্চ আদলতে মামলা করেছেন বলেও জানান তিনি।

এদিকে বিআইডব্লিউটিএ যুগ্ম পরিচালক গুলজার আলী বলেন, উচ্চ আদালতে নির্দেশে এ অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। তিনি বলেন, শুধু মাত্র নদীর জাগায় দখল করে গড়ে তোলা স্থাপনাগুলোই উচ্ছেদ করা হচ্ছে। খুব শিগগিরই সীমানা পিলার স্থাপন করা হবে।

ইত্তেফাক/এমএ/জেডএইচ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x