ঢাকা শনিবার, ২৪ আগস্ট ২০১৯, ৯ ভাদ্র ১৪২৬
২৮ °সে


গফরগাঁওয়ে সন্ত্রাসীদের ভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে একটি পরিবার

গফরগাঁওয়ে সন্ত্রাসীদের ভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে একটি পরিবার
সন্ত্রাসীদের ভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে সংখ্যালঘু এই পরিবারটি! ছবি: ইত্তেফাক

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে সন্ত্রাসীদের ভয়ে ৪ দিন ধরে পালিয়ে বেড়াচ্ছে ৩টি সংখ্যালঘু পরিবারের পুরুষ সদস্যরা। সন্ত্রাসীরা দফায় দফায় হামলা করে মারধর করেছে ওই তিনটি সংখ্যালঘু পরিবারের নারী ও পুরুষ সদস্যদের। হামলায় আহত স্কুলছাত্রী মনি রাজভরকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাটি গফরগাঁও উপজেলার গন্ডগ্রাম গ্রামে।

জানা গেছে, উপজেলার গন্ডগ্রামে সহায় সম্বলহীন বজম রাজভর, গনেশ রাজভর ও দীনেশ রাজভরের পরিবার গত তিন যুগ ধরে তুষার চক্রবর্ত্তীর জায়গায় বসত ঘর তুলে বসবাস করে আসছে। এর আগে পাশের শৈলেন্দ চক্রবতীর জায়গায় এই রাজভর পরিবারগুলো যুগের পর যুগ ধরে বসবাস করতো। ১৯৮৫ সালে শৈলেন্দ চক্রবর্তী জমি বিক্রি করে দেশত্যাগ করে ভারত চলে যায়। জমি ক্রয় করে স্থানীয় ইউপি সদস্য বেলাল মিয়ার পরিবারের সদস্যরা। এরপর রাজভর পরিবারগুলো পাশেই তুষার চক্রবর্ত্তীর জায়গায় আশ্রয় নেয়।

বজম রাজভর জানায়, কয়েক বছর যাবত বাদল মেম্বার ও তার লোকজন এই জায়গা থেকে রাজভর পরিবারের সদস্যদের উচ্ছেদের জন্য হুমকি ও চাপ দিচ্ছে। এই ভিটা থেকে বাড়িঘর না সরালে ঘরে আগুন লাগিয়ে পুড়িয়ে মারার হুমকিও দেয় তারা। কারণে-অকারণে সুযোগ পেলেই রাজভর পরিবারের ওপর চড়াও হয় বাদল মেম্বার ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী। মারধরসহ নানা ধরনের অত্যাচার-নির্যাতন করে রাজভর পরিবারের সদস্যদের।

গত সোমবার বিকাল সোয়া ছয়টার দিকে বেলাল মেম্বারের বাড়িতে ‘কামলা না দেওয়ার অপরাধে’ স্থানীয় ইউপি সদস্য বেলাল (৪৫), তার ছেলে আসাদুল (২২), তার ভাই হেলাল (৫০) ও তার আত্মীয় ইয়াহিয়ার (৩৮) নেতৃত্বে একদল সশস্ত্র লোক নিয়ে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে বজম রাজভর, গনেশ রাজভর ও দীনেশ রাজভরের বাড়িতে হামলা চালায়। বজম রাজভর (৩৫), দীনেশ রাজভর (৪৫), দীনেশ রাজভরের ছেলে বলরাম রাজভর (২১) ও গনেশ রাজভরের ছেলে কৃষ্ণ(২৫) ও রুপমকে (১৫) পিটিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়। আবার বাড়িতে এলে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয়।

এ সময় দীনেশ রাজভরের দুই মেয়ে শুভা রাজভর (১৭) ও মনি রাজভরকে (১৫) পিটিয়ে আহত করে সন্ত্রাসী বাহিনী। এরপর থেকে রাজভর পরিবারের পুরুষ সদস্যরা বাড়িতে যেতে পারছে না, পালিয়ে বেড়াচ্ছে। বুধবার দুপুর ১২টার দিকে ‘বাড়ি ছেড়ে চলে না যাওয়ার অপরাধে’ বসত ঘরে ঢুকে স্কুলছাত্রী মনি রাজভরকে রড দিয়ে এলাপাথারী পিটিয়ে গুরুতর আহত করে বাদল মেম্বারের সন্ত্রাসীরা। আহত মনি রাজভরকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে এ ঘটনায় বজম রাজভর গফরগাঁও থানায় মামলা দায়ের করা হয়।

আরও পড়ুন: বিজয়নগরে চেয়ারম্যান প্রার্থীর গাড়িবহরে হামলা, আহত-২০

ইউপি সদস্য বাদল মিয়া মোবাইল ফোন রিসিভ না করায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই জাকির বলেন, আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ইত্তেফাক/নূহু

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২৪ আগস্ট, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন