রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

কাল জেলা পরিষদ নির্বাচন, মনিটরিং হবে সিসি ক্যামেরায়

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২২, ১২:৪৫

ইভিএম-এর মাধ্যমে সোমবার (১৭ অক্টোবর) দেশের ৫৭ জেলায় একযোগে হতে যাচ্ছে জেলা পরিষদ নির্বাচন। এরই মধ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

স্বচ্ছ নির্বাচনের লক্ষ্যে প্রতিটি কেন্দ্রে বসানো হয়েছে সিসি ক্যামেরা। ইসি কার্যালয়ের মনিটরিং সেল থেকে এসব কেন্দ্র সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণ করা হবে। নির্বাচনের সার্বিক বিষয় নিয়ে কমিশনের অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ সংবাদমাধ্যমকে এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ভোটের গোপনীয়তা রক্ষার স্বার্থে ইতোমধ্যে রিটার্নিং কর্মকর্তাদের বিশেষ নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। ভোটাররা মোবাইলফোন নিয়ে কেন্দ্রে প্রবেশ করতে পারবেন না।

ইসির অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ আরও বলেন, বিভিন্ন স্থান থেকে আচরণবিধি লঙ্ঘনের যেসব অভিযোগ এসেছিল, সেগুলো তদন্ত করে প্রতিবেদন আনা হয়েছে। প্রতিবেদনের আলোকে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

'জেলা পরিষদ নির্বাচনে ভোটের মতোই ভোট হবে। কোনো অনিয়ম ধরা পড়লে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়েছে। সিসি ক্যামেরায় নির্বাচন সরাসরি মনিটর করবে কমিশন।'

এর আগে, শনিবার (১৫ অক্টোবর) দিবাগত মধ্যরাতে শেষ হয় জেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা। এরই মধ্যে আওয়ামী লীগ সমর্থিত ২৭ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ৬৯ জন এবং সংরক্ষিত সদস্য পদে ১৯ জন প্রার্থী জয়ী হয়েছেন।

ফেনী ও ভোলায় চেয়ারম্যানসহ সদস্য সবাই বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় সেখানে ভোটের প্রয়োজন নেই। এছাড়া আইনি জটিলতায় স্থগিত রয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও নোয়াখালী জেলা পরিষদ নির্বাচন।

নির্বাচনকে ঘিরে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে ৯৪ জন বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট। তারা ভোটগ্রহণের আগে ২ দিন, ভোট গ্রহণের দিন ও ভোটগ্রহণের পরের দিন দায়িত্ব পালন করবেন বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

ইত্তেফাক/এসকে