বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

সাভারে এসিল্যান্ডকে ছুরিকাঘাত: আরও ৫ ছিনতাইকারী গ্রেফতার

আপডেট : ১৭ নভেম্বর ২০২২, ১৯:৪৬

সাভারের সিএন্ডবি এলাকায় পটুয়াখালীর কলাপাড়ার উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আবু বক্কর সিদ্দিককে (৩৪) ছুরিকাঘাত করে নগদ টাকা ও মোবাইল ছিনতাইয়ের ঘটনায় পুলিশ ৫ ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে। 

বৃহস্পতিবার (১৭ নভেম্বর) দুপুরে সাভার মডেল থানা মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে ঢাকা জেলার পুলিশ সুপার মো. আসাদুজ্জামান এসব কথা জানান।

এছাড়া এসময় ছিনতাই হওয়া মোবাইলটি যার কাছে বিক্রি করা হয়েছিলো পুলিশ তাকেও গ্রেফতার করেছে। উদ্ধার করা হয়েছে ছিনিয়ে নেওয়া মোবাইল ফোন, ম্যানিব্যাগ, এটিএম কার্ড ও নগদ টাকাসহ ছিনতাইয়ের সময় ব্যবহৃত রক্তমাখা ধারাল চাকুটিও। 
 
ম্যাজিস্ট্রেট পরিচয় জানার পরই ছিনতাইকারীরা তাকে মেরে ফেলার উদ্দেশ্যে তার শরীরে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাত করে মৃত্যু নিশ্চিত করে ফেলে রাখা হয়েছিলো বলেও জানান তিনি। 

সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার আরও বলেন, এসিল্যান্ড আবু বক্কর সিদ্দিকীকে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় গ্রেফতারকৃতরা সকলেই মাদকসেবী এবং ছিনতাইয়ের পূর্বে তারা মাদকসেবন করেই ঘটনাটি ঘটিয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন স্থানে একাধিক মামলাও রয়েছে।  

তিনি বলেন, সাভারের সিএন্ডবি এলাকায় এসিল্যান্ডকে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ঢাকা ও সাভারের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে গ্রেফতারের পাশাপাশি ছিনতাইয়ের কাজে ব্যবহৃত চারটি সুইচ গিয়ার চাকু, ছিনতাই হওয়া মোবাইল ফোন, মানিব্যাগ, এটিএম কার্ডসহ নগদ টাকা ও অন্যান্য মালামাল উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়া ছিনতাই করা মোবাইল বিক্রির ৫ হাজার টাকা জব্দসহ মোবাইল ক্রয়কারীকে আইনের আওতায় আনা হয়েছে।
 
ছিনতাইয়ের ঘটনায় গ্রেফতারকৃতরা হলো গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর থানার বাজুন্দি গ্রামের মৃত মালেক ফকিরের ছেলে রাসেল ফকির (২০), কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব থানার গজারিয়া বাজার গ্রামের ছাত্তারের ছেলে মো. নাঈম (২০), রাজধানীর পশ্চিম ভাষানটেক এলাকার কামালের ছেলে মো. কামরুল হাসান (২২), মানিকগঞ্জ জেলার সাটুরিয়া থানার তিল্লিরচর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে সজীব আহমেদ (২০), পাবনা জেলার বেড়া থানার ছোটো পায়না গ্রামের মো. দুলালের ছেলে মো. আরমান (২১) ও চোরাই মোবাইলের ক্রেতা মানিকগঞ্জ জেলার দৌলতপুর থানার রোহা গ্রামের আজিম উদ্দিনের ছেলে গোলাম মোস্তফা (২৫)। এর আগে গত মঙ্গলবার রাতে ছিনতাইকারী চক্রের মূল হোতা ট্যারা রাসেলকেও গ্রেফতার করেছিল পুলিশ।  তারা সবাই অস্থায়ীভাবে সাভারের বিভিন্ন স্থানে বসবাস করতো।

সাভার মডেল থানার ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, ঘটনার ৪৮ ঘন্টার মধ্যেই সাভার ও ঢাকার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে আসামিদের গ্রেফতার করা হয়েছে। এর মধ্যে ছিনতাইয়ের সঙ্গে সরাসরি জড়িত ৫ জন এবং মোবাইলটি যে দোকানে বিক্রি করা হয়েছিল সেই দোকানীকেও গ্রেফতার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসবাদে তারা ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। দুপুরে তাদেরকে সংশ্লিষ্ট মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।
 
গত ২২ অক্টোবর ল্যান্ড সার্ভে ও সেটেলমেন্ট-বিষয়ক প্রশিক্ষণ নিতে সাভারে আসেন পটুয়াখালী জেলার কলাপাড়া উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) আবু বক্কর সিদ্দিকী। ১৪ নভেম্বর বিকেলে অসুস্থ মাকে দেখার জন্য রাজধানীর মিরপুরে যান তিনি। সেখান থেকে রাতেই সাভারে ফিরে সিএন্ডবি এলাকায় বাস থেকে নামার পর ছিনতাইকারীদের কবলে পড়েন।

ইত্তেফাক/পিও