বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

ইত্তেফাকে সংবাদ প্রকাশের পর

এসএসসিতে গণফেল: সেই দুই কেন্দ্রের সবাই পাস

আপডেট : ১৮ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭:৪৭

জামালপুরের মেলান্দহে এসএসসি পরীক্ষায় হাজরাবাড়ি হাই স্কুল ও ভাবকী হাই স্কুল এই দুই কেন্দ্রে গণফেল-এর বিষয়ে চূড়ান্ত সমাধান হয়েছে। ফলে দুই কেন্দ্রের ১ হাজার ২শ’ ১৩ জন শিক্ষার্থীর সবাই পাস করেছে। বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর) বিকাল ৪টার দিকে এ ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

সদ্য এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হওয়ার পর দুই কেন্দ্রের ১৪টি স্কুলের ১ হাজার ২শ’ ১৩ জন শিক্ষার্থীর ব্যবহারিক ১৫০ নম্বর যোগ করা হয়নি। ফলে গ্রেডিং পদ্ধতিতে সব শিক্ষার্থীদের ফলাফল অকৃতকার্য দেখানো হয়েছে। এই শিক্ষার্থীরা কলেজে ভর্তিরও সুযোগ পাচ্ছিলো না। হতাশাগ্রস্থ শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়ে। খবরটি ১ ডিসেম্বর দৈনিক ইত্তেফাকের অনলাইন, ৩ ডিসেম্বর প্রিন্টভার্সনে প্রকাশিত হলে হইচই পড়ে যায়। কিন্তু সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র সচিব আব্দুল মোতালেব ও মিজানুর রহমান বিষয়টি প্রশাসনকে অবগতও করেননি। পরিস্থিতি ক্রমেই ঘোলাটে হওয়ার একপর্যায়ে ১২ ডিসেম্বর বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা হাজরাবাড়ি হাই স্কুলে ব্যাপক ভাংচুরসহ জামালপুর-মাদারগঞ্জ মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে। 

মাদারগঞ্জ এবং হাজরাবাড়ি পৌর মেয়রের মধ্যস্থতায় কেন্দ্র সচিব আব্দুল মোতালেব বিএসসি-শিক্ষার্থী অভিভাবকদের সমস্যার সমাধানের আশ্বাস দিলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এবং আবারও ১৩ ডিসেম্বর ইত্তেফাকে সংবাদ প্রকাশিত হয়। ফলে ছাত্র, অভিভাবক ও সচেতন মহল শিক্ষার্থীদের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলার ঘটনায় দায়ী ব্যক্তির বিরুদ্ধে শাস্তির দাবি করেন। 

অভিযুক্ত বেলতৈল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও কেন্দ্র সচিব মিজানুর রহমান এ বিষয়ে বলেন, কেন্দ্র সচিব হিসেবে আমাদের কোনো ক্রটি নেই। বোর্ডের কম্পিউটারম্যান যারা ডাটা এন্টি করেন তাদের গাফেলতির কারণে এমনটা হয়েছে।

কেন্দ্র সচিব আব্দুল মোতালেব জানান, বৃহস্পতিবার এ বিষয়ে সবকিছু সমাধান করেছি। 

মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আজাদুর রহমান জানান, শিক্ষাবোর্ড ফেল-করা সব শিক্ষার্থীকে পাস করিয়ে দিয়েছে। এখন দুই কেন্দ্রের গণফেলের বিষয়ে দায়ী ব্যক্তির বিরুদ্ধে প্রশাসনিক মিটিংয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ইত্তেফাক/পিও