বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

লিসবনে বাংলাদেশ দূতাবাসে বিজয়ফুল কর্মসূচি অনুষ্ঠিত

আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৩:০৪

পর্তুগালের রাজধানী লিসবনে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসে স্বতঃস্ফূর্তভাবে বিজয়ফুল কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস প্রবাসী বংশোদ্ভুত বর্তমান প্রজন্মের মাঝে তুলে ধরতে প্রতিবছরের ন্যায় এবারও বিজয়ফুল উদযাপন করা হয়েছে। ১ থেকে ১৬ ডিসেম্বরের বিজয়ফুল কর্মসূচি লিসবনের বাংলাদেশ দূতাবাসের বঙ্গবন্ধু কর্নার প্রাঙ্গনে আয়োজন করা হয়েছে। 

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ও বিজয় দিবসের বিশেষ ক্রোড়পত্রের মোড়ক উন্মোচন করেন পর্তুগালে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রেজিনা আহমেদ।

কর্মসূচির মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিজয়ফুল কর্মসূচি ইতালির সমন্বয়কারী ও মিলান বাংলা প্রেসক্লাব ইতালির সভাপতি রিয়াজুল ইসলাম কাওছার। অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূতের বাণী সহ বিজয় দিবসের বিভিন্ন লেখা নিয়ে প্রকাশ করা হয় বিজয় দিবসের একটি বিশেষ ক্রোড়পত্র।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ দূতাবাস পর্তুগালের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স মোঃ আলমগীর হোসেন, পর্তুগাল আওয়ামী লীগের সভাপতি জহিরুল আলম জসিম সহ প্রমূখ। কর্মসূচির তত্ত্বাবধায়ক ছিলেন বিজয়ফুল কর্মসূচি ইতালির সমন্বয়ক ও মিলান বাংলা প্রেসক্লাব ইতালির উপদেষ্টা তুহিন মাহমুদ।

এসময়ে গত একুশে গ্রন্থ মেলায় প্রকাশিত রিয়াজুল ইসলাম কাওছারের লেখা প্রবন্ধ গ্রন্থ “ভাবনা গুলো ভাবিয়ে যায়”রাষ্ট্রদূতকে উপহার দেন। প্রবাসের মাটিতে বিজয়ফুল কর্মসূচির মাধ্যমে প্রবাসে বেড়ে ওঠা নতুন প্রজন্মের মাঝে মহান মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস পরিচয় এবং বিজয়ের তাৎপর্য তুলে ধরাই বিজয়ফুল কর্মসূচির মূল লক্ষ্য জানালেন আয়োজকরা। প্রবাসী কবি শামিম আজাদ মহান যুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করে বিজয়ফুল কর্মসূচীর কার্যক্রম শুরু করেছিলেন যা এখন বিশ্ব বিস্তৃত।

ইত্তেফাক/এএইচপি