শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

মেদ ঝরাতে সঠিকভাবে ঘুমান

আপডেট : ২৭ মে ২০২৪, ২৩:৩৭

ওজন কমানোর জন্যে হাড়ভাঙা খাটুনি তো করতেই হয়; সেইসাথে আছে জীবনযাত্রায় কিছু পরিবর্তন আনার চেষ্টা। তবে কেউ কি ভেবেছে যে ঘুমিয়েও ওজন কমানো সম্ভব? ব্যাপারটা মোটেও এমন নয় যে ঘুমালেই ওজন কমে যাবে। ঘুমের আগে কিছু অভ্যাস গড়ে নিলে ওজন কমানোর প্রাকৃতিক সুফল মিলবে। 

আপনি ঘুমিয়ে গেলেও আপনার দেহের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ কার্যকরী থাকে। অর্থাৎ দেহের শক্তি ক্ষয় ঘুমেও হয়। এ সময় কিছু ক্যালরিও খরচ হয়। সারারাত ঘুমের সময় বাড়তি ওজন নিঃশ্বাস এবং ঘামের মধ্যেই বের হয়। সকালে ঘুম ভাঙার পর ওজন মাপলে দেখা যাবে কিছুটা কম। 

তাই ওজন কমানোর ক্ষেত্রে পর্যাপ্ত ঘুমের বিকল্প নেই। উলটো ঘুম ঠিকঠাক না হলে শরীরে ওজন বাড়ে। কারণ ঘুম না হলে স্ট্রেস হরমোন কর্টিসল ক্ষরণ হয়। এতে হজমের সমস্যা ও বিপাকে সমস্যা হয়। ফলে রাতে আজেবাজে খাবার গ্রহণের মাত্রা বাড়ে ও রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা চড়তে শুরু করে। এতে ওজন বাড়বে স্বাভাবিক। 

ঘুমের মধ্যেও ক্যালরি কিভাবে ঝরানো সম্ভব? 

  • সকালের বদলে সন্ধ্যাবেলা ওয়েইট ট্রেইনিং করুন। দেহে শর্করার মাত্রা রাতে বেশি ওঠা নামা করে থাকে। এমনকি দেহে বিপাকের হারও শরীরচর্চার ১৬ ঘণ্টা পর কার্যকর থাকে। এতে সারারাত হজম চলতে থাকলে ক্যালরি ঝরবে।
  • এক্সারসাইজ করেই ঠাণ্ডা পানিতে গোসল সেরে নিন। এতে দেহের ল্যাকটিক এসিড বের হতে শুরু করবে। কিন্তু কেন?
  • আমাদের দেহে ব্রাউন ফ্যাট এমনিতেই কম। একে সক্রিয় করতে পারলেই দেহে বিপাক প্রক্রিয়া বাড়বে। মাত্র ৩০ সেকেন্ডের মতো ঠাণ্ডা পানিতে গোসল করতে পারলেই ব্রাউন ফ্যাট কার্যকরী হবে। এতে ক্যালরি ঝরবে।
  • দিনে অন্তত তিন চারবার গ্রিন টি খান। এমনকি রাতে ঘুমোবার এক ঘণ্টা আগে গ্রিন টি খেয়ে নিন। এতে দেহের ক্যালরি ঝরবে।
ইত্তেফাক/এআই

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন