সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

আন্দোলনে তরুণদের এগিয়ে আসতে হবে: মির্জা ফখরুল

আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২২:৩৭

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেছেন, এই অবৈধ জালিম সরকারকে হটাতে নতুন প্রজন্ম ও তরুণদেরকে এগিয়ে আসতে হবে। কোনো অন্যায়কে আর প্রশ্রয় দেওয়া হবে না। যে কোনো মূল্যে সরকারকে ঠেকাতে হবে। এ সরকার মানুষকে মামলা দিয়ে আন্দোলন ঠেকিয়ে রাখতে চায়। এ সময় তিনি দেশের মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে দিতে তরুণদের প্রতি আহ্বান করেন ।

রোববার (২৬ ফেব্রুয়ারি) বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে ঢাকা জেলা বিএনপির পদযাত্রা কর্মসূচিতে নবাবগঞ্জে সদর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, দেশের সমস্ত ব্যাংক থেকে শুরু করে বিভিন্ন সেক্টরে সব লুটপাট করে শেষ করে দিচ্ছে এই অবৈধ সরকার। আওয়ামী লীগের অনেকের যার স্যাণ্ডেল পরার ক্ষমতা ছিলো না, তারা দেশের মানুষের রক্ত চুষে নিয়ে এখন বড় বড় অট্টেলিকা বানিয়েছে।

মহাসচিব বলেন, আমরা বাংলাদেশের মানুষ অত্যন্ত সংকটময় মুহূর্ত কাটাচ্ছি। এ সংকট বিএনপির, তারেক রহমান ও বেগম খালেদা জিয়ার সংকট নয়। এ সংকট দেশের মানুষের সংকট। চালের দাম কমছে না, বাড়ছে। চাল-ডাল-তেল থেকে শুরু করে নিত্যপ্রয়োজনীয় সব কিছুর দাম অনেক ঊর্ধ্বগতি। মানুষ ঠিকমতো খেতে পায় না। এখন কোনো কথা বলা যায় না। কথা বললেই জেলে যেতে হয়। বিএনপির এমন কোনো নেতা নাই যে, তার নামে মামলা নাই।

ফখরুল বলেন, ১৫ বছর ধরে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় বসে আছে। কেউ কোনো কথা বলতে পারছে না। দেশে কোনো স্বাস্থ্যসেবা নাই। দেশের মানুষের কোনো উপকার হচ্ছে না। তারা দেশে আবার নতুন নির্বাচনের পাঁয়তারা করছে। বলছে দেশে আর তত্ত্বাবধায়ক সরকার হবে না। এই বলে বেআইনিভাবে আবার ক্ষমতায় আসতে চায়। এ দেশের জনগণ আর আপনাদের ক্ষমতায় দেখতে চায় না। অবিলম্বে ক্ষমতা ছেড়ে দিয়ে মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে দিন। দেশের মানুষকে শান্তিতে থাকতে দিন। পরে শহীদ মিনার থেকে হাজার হাজার নেতা-কর্মী নিয়ে উপজেলার প্রধান সড়কগুলো প্রদক্ষিণ করে বক্সনগরের দিকে পদযাত্রা শুরু করেন মির্জ ফখরুল ইসলাম।

ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি খন্দকার আবু আশফাকের সভাপতিত্বে সভা পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. নিপুন রায়। পদযাত্রায় অংশগ্রহণ করেন ঢাকা জেলার বিভিন্ন উপজেলার বিএনপি ও সকল অঙ্গসংগঠনের নেতা-কর্মীরা।

ইত্তেফাক/পিও